শুক্রবার   ০১ জুলাই ২০২২   আষাঢ় ১৬ ১৪২৯   ০১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

সর্বশেষ:
উঁকি দিয়েছে চাঁদ, ঈদুল আজহা ১০ জুলাই তিস্তা ও ধরলার পানি কমলেও বেড়েছে দুর্ভোগ তিস্তা ও সানিয়াজান নদীর পানি বৃদ্ধি,৩ হাজার পরিবার পানিবন্দি বিপৎসীমার ওপরে ধরলা-দুধকুমারের পানি সৌদি আরবে ঈদুল আজহা ৯ জুলাই চাকরির একমাত্র বিকল্প শিক্ষিত বেকারদের উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তোলা
১৮১

ঠাকুরগাঁওয়ে মিনি স্টেডিয়ামে আর বসবে না বাঁশের হাট

প্রকাশিত: ২৭ এপ্রিল ২০২২  

রানীশংকৈলে শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামে আর বসবে না বাঁশের হাট। বুধবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জুলকার নাঈন কবির স্টিভ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

খেলাধুলা বাধাগ্রস্ত হওয়ায় স্টেডিয়াম থেকে বাঁশের হাট পাশের একটি ফাঁকা জায়গায় স্থানান্তর করা হয়েছে জানিয়ে ইউএনও জুলকার নাঈন বলেন, গত সপ্তাহে স্টেডিয়ামে হাটটি বসাতে নিষেধ করে উপজেলা প্রশাসন। এরপর এক সপ্তাহ সময় নেন হাট ইজারাদার। এ সপ্তাহের বুধবার হাটটি স্থানান্তর করা হয়েছে। স্টেডিয়ামে আর বাঁশের হাট বসবে না।


এদিকে ইউএনওর হস্তক্ষেপে স্টেডিয়াম থেকে বাঁশের হাট অপসারণ হওয়ায় আনন্দিত স্থানীয় খেলোয়ার ও খেলাপ্রেমী মানুষজন।

স্থানীয় খেলোয়ার সাদ্দাম হোসেন বলেন, এখন মাঠটি পরিচর্যা করে খেলার উপযোগী করা হলে আমাদের আনন্দ পরিপূর্ণতা পাবে। আমরা উপজেলা প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানাই।

স্থানীয় বাসিন্দা আনোয়ার হোসেন বলেন, এখন থেকে আর স্টেডিয়ামে বাঁশের হাট বসবে না শুনে ভালো লাগছে। আমাদের সন্তানরা নির্বিঘ্নে মাঠে খেলবে।

রানীশংকৈল পৌরসভার মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান  বলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার হাটটি সেখানে বসতে দেবেন না। যেহেতু পৌরসভার জমি না, আমি এ বিষয়ে কিছু বলতে পারবো না। হাট না বসলে আমি ইজারাদারকে টেন্ডারের টাকা ফেরৎ দিয়ে দেবো।


সম্প্রতি ঠাকুরগাঁওয়ে শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামে বাঁশের হাট শিরোনামে প্রতিবেদন প্রকাশ করে একাধিক সংবাদ মাধ্যম। তারপরই স্টেডিয়ামটি উদ্ধারে মাঠে নামে প্রশাসন।

এই বিভাগের আরো খবর