বুধবার   ১৮ মে ২০২২   জ্যৈষ্ঠ ৪ ১৪২৯   ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
জিআই সনদ পেলো বাগদা চিংড়ি পঞ্চগড়ে ট্রেনের টয়লেটে মিললো বীর মুক্তিযোদ্ধার মরদেহ রংপুরে ভারি, অন্যান্য স্থানে হালকা বৃষ্টি হতে পারে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট থেকে আয় ৩০০ কোটি ছাড়িয়েছে: বিএসসিএল উন্নয়ন প্রকল্পের সমালোচকদের একহাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী
১৯৫

সাদুল্লাপুরে টিকাকেন্দ্রে স্কুলছাত্রীকে যৌন হয়রানি,আটক-১

প্রকাশিত: ৮ মে ২০২২  

গাইবান্ধার সাদুল্লাপুরে টিকাকেন্দ্রে দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ৯৯৯-এ ফোন দেওয়ার পর অভিযুক্ত সাদুল্ল্যাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য সহকারী মমিন প্রামাণিককে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার (৭ মে) সন্ধ্যায় উপজেলার ফরিদপুর ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়। আটক মমিন প্রামানিক সাদুল্ল্যাপুর উপজেলার নলডাঙ্গা ইউনিয়নের শ্রীরামপুর গ্রামের বাসিন্দা। তিনি সাদুল্ল্যাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য সহকারী হিসেবে কর্মরত আছেন।

জানা যায়, শনিবার দুপুরের দিকে মহেশপুর গ্রামের মৃত ফজল উদ্দিন মাস্টারের বাড়ির কেন্দ্রে টিকা (বয়ঃসন্ধি) প্রদান কার্যক্রম চলছিল। কেন্দ্রটিতে সাদুল্ল্যাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য সহকারী মমিন প্রামানিক দায়িত্বে ছিলেন। এসময় দশম শ্রেণির এক ছাত্রী টিকা নিতে রুমের ভেতরে গেলে মমিন প্রামানিক তাকে যৌন নির্যাতন করেন।

এ সময় ওই ছাত্রী চিৎকার করে রুমের বাইরে চলে আসে। পরে স্থানীয়রা মমিনকে আটকানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯-এ কল দিয়ে অভিযোগ করেন। সন্ধ্যার দিকে পুলিশ উপজেলার ফরিদপুর ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রাম থেকে তাকে আটক করে।

এ বিষয়ে সাদুল্ল্যাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার রায়  বলেন, ৯৯৯-এ ফোন পেয়ে আমরা সাদুল্ল্যাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য সহকারী মমিন প্রামানিককে আটক করেছি। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এই বিভাগের আরো খবর