বুধবার   ১৮ মে ২০২২   জ্যৈষ্ঠ ৪ ১৪২৯   ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
জিআই সনদ পেলো বাগদা চিংড়ি পঞ্চগড়ে ট্রেনের টয়লেটে মিললো বীর মুক্তিযোদ্ধার মরদেহ রংপুরে ভারি, অন্যান্য স্থানে হালকা বৃষ্টি হতে পারে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট থেকে আয় ৩০০ কোটি ছাড়িয়েছে: বিএসসিএল উন্নয়ন প্রকল্পের সমালোচকদের একহাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী
৯৮

ভোগডাঙ্গা ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে প্রতিহিংসামূলক অপ্রচার

 কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি।।

প্রকাশিত: ১২ মে ২০২২  

কুড়িগ্রাম সদরের ভোগডাঙ্গা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সাইদুর রহমান বর্তমান টানা চতুর্থবারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান। কিন্তু তার ব্যক্তি  ইমেজকে কলুষিত করার জন্য একটি মহল মিডিয়াকে ভুয়া তথ্য দিয়ে রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক সংবাদ প্রকাশ করায় সচেতন মহলে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

শুধু তাই নয় এই ইউপি চেয়ারম্যান তথ্যপ্রযুক্তি আইনে  এক ব্যক্তির নামে ইতিপূর্বে মামলা করায় তিনি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মিথ্যাচারের নেমেছেন বলে বেরিয়ে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। 

ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের স্থানীয় একাধিক ব্যক্তির সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সদরের ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের বাণীর খামার গ্রামের কৃষক রবিউল আলম গত ইউপি নির্বাচনে বর্তমান চেয়ারম্যান এর বিপক্ষে কাজ করেছিল।

এ কারণে চক্ষুলজ্জায় চেয়ারম্যানের বাসায় না গিয়ে তার আত্মীয় জিন্নাহ নামের এক শিক্ষকের দ্বারা রবিউল তার পুত্র আব্দুর রাজ্জাকের নাগরিকত্ব সনদপত্র নিয়ে যান।  এ অবস্থায় রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক একটি মহল সহজ-সরল রবিউল কে ফুসলিয়ে তাকে পুঁজি করে বিভ্রান্তিকর মিথ্যা তথ্য সাংবাদিককে দিয়ে সংবাদ পরিবেশন করেছেন। ভোগডাঙ্গা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সাইদুর রহমান বলেন এই ইউনিয়নের বাসিন্দাদের নাগরিকত্ব সনদ আমার দেয়া দায়িত্ব ও কর্তব্য রয়েছে।   

এ ধরনের জঘন্যতম কাজ করলে দল-মত নির্বিশেষে সবার ভোট পেয়ে আমি পরপর চারবার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে পারতাম না। এ ধরনের মিথ্যা অপপ্রচারের আমি হতবাক।

চেয়ারম্যান আরো বলেন গত ৭ মে আমার বাসায় বিয়ের অনুষ্ঠান ছিল। ঐদিন রবিউল বা তার ছেলে আমার বাড়িতে আসে নাই। নাম প্রকাশ না করার শর্তে ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের কিছু নেতা ,, কর্মী বলেন এসব গুজব ছড়িয়ে ভোগডাঙ্গা ইউনিয়নের মর্যাদা ক্ষুণ্ণ করার পক্ষে আমরা একমত নই। 

এই বিভাগের আরো খবর