ব্রেকিং:
২০ ডিসেম্বর থেকে দেওয়া হবে করোনা টিকার চতুর্থ ডোজ আড়াই বছর পর চালু হলো কুড়িগ্রামের বর্ডার হাট

বুধবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০২২   অগ্রাহায়ণ ২২ ১৪২৯   ১৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

সর্বশেষ:
কুড়িগ্রামে পুকুরে ডুবে শিশুর মৃত্যু আজ ৬ ডিসেম্বর লালমনিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস গোলরক্ষকের বীরত্বে জাপানকে টাইব্রেকারে হারিয়ে কোয়ার্টারে ক্রোয়েশি ব্রাজিলের শেষ আটে ওঠার লড়াইয়ে আজ সামনে দক্ষিণ কোরিয়া কেউ আমার লাশ পাইলে ফোন দিয়েন
১১৫

নির্বাচন ঘিরে সরকার নতুন ষড়যন্ত্রের পাঁয়তারা করছে: ফখরুল

প্রকাশিত: ২২ অক্টোবর ২০২২  

আগামী জাতীয় নির্বাচন ঘিরে সরকার নতুন করে ষড়যন্ত্রের পাঁয়তারা শুরু করেছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

 

শনিবার (২২ অক্টোবর) বিকেলে খুলনা মহানগরীর ডাকবাংলো মোড়ের সোনালী ব্যাংক চত্বরে অনুষ্ঠিত বিএনপির খুলনা বিভাগীয় গণসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

ফখরুল বলেন, বর্তমান সরকার মেগা প্রকল্পের নামে মেগা দুর্নীতি করেছে। তদন্ত কমিশন গঠন করে সব দুর্নীতিবাজকে খুঁজে বের করে উৎখাত করা হবে।

নির্বাচন ঘিরে সরকার নতুন ষড়যন্ত্রের পাঁয়তারা করছে: ফখরুল

তিনি বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিলে আওয়ামী লীগের চিহ্ন থাকবে না। তাই আগামী জাতীয় নির্বাচন ঘিরে শেখ হাসিনার সরকার নতুন করে ষড়যন্ত্রের পাঁয়তারা শুরু করেছে। কিন্তু এই দেশে তত্ত্বাবধায়ক সরকার ছাড়া কোনো নির্বাচন হবে না। হাসিনা সরকারকে পদত্যাগ করতেই হবে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, হাসিনা সরকার জোর করে ক্ষমতায় থাকতে চায়। তারা জানগণকে বঞ্চিত করে বিনা ভোটে ক্ষামতায় টিকে থাকতে চায়। তাই তার অধীনে কোনো নির্বাচন হতে পারে না। হাসিনা সরকারকে অবশ্যই পদত্যাগ করতে হবে।

নির্বাচন ঘিরে সরকার নতুন ষড়যন্ত্রের পাঁয়তারা করছে: ফখরুল

নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে করা মামলা প্রত্যাহার ও গ্রেফতারদের মুক্তির দাবি জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, অন্যথায় সোজা কথায় বলছি, আপনারাও পালানোর পথ পাবেন না। এই জনগণ অভ্যুত্থানের মাধ্যমে আপনাদের উৎখাত করবে।

আওয়ামী লীগ দেশকে ‘নরকে’ পরিণত করেছে দাবি করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, তারা দেশের অর্থনীতি ধ্বংস করেছে, অবৈধ ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করতে তারা রাষ্ট্রযন্ত্রকেও শেষ করে দিয়েছে। শতভাগ বিদ্যুৎ দেওয়ার নামে প্রতিবছর হাজার হাজার কোটি টাকা লুট করেছে। কিন্তু আমরা দিনে ৮/৯ ঘণ্টা লোডশেডিংয়ের মধ্যে থাকি।

তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগ মুখে গণতন্ত্রের কথা বলে জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করে। সে কারণে আমাদের সামনে আন্দোলনের কোনো বিকল্প নেই। আন্দোলনের মাধ্যমেই সরকারের পতন ঘটানো হবে। এজন্য আমাদের অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে। তবেই আমরা ৭১ পরবর্তী সময়ের মতো একটা গণতান্ত্রিক বাংলাদেশ পাবো।

 

খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি, নির্বাচনকালীন নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকার, জ্বালানিসহ নিত্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি, পুলিশের গুলিতে দলীয় নেতাকর্মী নিহত, হামলা ও মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে দেশের বিভাগীয় শহরগুলোতে গণসমাবেশের অংশ হিসেবে খুলনায় বিএনপির এ বিভাগীয় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। খুলনা মহানগর ও জেলা বিএনপি এই সমাবেশের আয়োজন করে।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন খুলনা মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক এস এম শফিকুল আলম মনা। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ড. আব্দুল মঈন খান, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, অ্যাডভোকেট নিতাই রায় চৌধুরী প্রমুখ।

এই বিভাগের আরো খবর