শনিবার   ০২ জুলাই ২০২২   আষাঢ় ১৮ ১৪২৯   ০২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

সর্বশেষ:
বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৯৫ উত্তাল আটলান্টিকে ভয়াবহ পরিস্থিতির মুখোমুখি টাইগাররা উঁকি দিয়েছে চাঁদ, ঈদুল আজহা ১০ জুলাই তিস্তা ও ধরলার পানি কমলেও বেড়েছে দুর্ভোগ তিস্তা ও সানিয়াজান নদীর পানি বৃদ্ধি,৩ হাজার পরিবার পানিবন্দি
২১৩

কুড়িগ্রামে মা-ছেলেকে গলা কেটে হত্যা, গ্রেফতার ২

প্রকাশিত: ২৫ মে ২০২২  



কুড়িগ্রামের রৌমারীতে পূর্বপরিকল্পিতভাবে মা ও শিশুকে গলা কেটে হত্যার ঘটনায় দুইজনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১৪।

গ্রেফতাররা হলেন- নিহত হাফসা আক্তার হারেনার উকিল বাবা ও উপজেলার শৌলমারী ইউনিয়নের ওকড়াকান্দা গ্রামের জাকির হোসেন ওরফে জফিয়াল ও নিহতের দেবর একই এলাকার চাঁন মিয়া।

বুধবার (২৫ মে) দুপুরে রৌমারী অফিসার্স ক্লাবে এক প্রেস ব্রিফিংয়ের এসব তথ্য জানান র‌্যাব-১৪ জামালপুরের কোম্পানি কমান্ডর স্কোয়াড্রন লিডার আশিক উজ্জামান।

তিনি জানান, জামালপুরের বকশীগঞ্জে অভিযান চালিয়ে আসামি জাকির হোসেন ওরফে জফিয়ালকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তার দেওয়া তথ্যমতে, রৌমারী উপজেলার শৌলমারী ইউনিয়নের বোয়ালমারী গ্রামের এক আত্মীয়ের বাড়ি থেকে এ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে সম্পৃক্ত নিহত হারেনার দেবর চাঁন মিয়াকে গ্রেফতার করা হয়।

রৌমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোন্তাছির বিল্লাহ বলেন, গ্রেফতার দুই আসামিকে জামালপুর র‌্যাব-১৪ থানায় হস্তান্তর করেছে। তাদের আদালতে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলমান।

গত ২১ মে কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের নতুনবন্দর এলাকায় বাবারবাড়ির পাশের ধানক্ষেতে পাঁচ মাস বয়সী শিশু সন্তান হাবিবের গলাকাটা মরদেহ ও মা হাফসা আক্তার হারেনাকে গলাকাটা অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। পরে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে হাফসার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহত হাফসার বাবা বাদী হয়ে রৌমারী থানায় হত্যা মামলা করেন।

এই বিভাগের আরো খবর